ব্রেকিং

x

এসএসসির ফল কাল, সমাবেশের কারণে ‘উৎকণ্ঠায়’ লাখো শিক্ষার্থী

বৃহস্পতিবার, ২৭ জুলাই ২০২৩ | 108 বার

এসএসসির ফল কাল, সমাবেশের কারণে ‘উৎকণ্ঠায়’ লাখো শিক্ষার্থী
এসএসসির ফল কাল, সমাবেশের কারণে ‘উৎকণ্ঠায়’ লাখো শিক্ষার্থী

এসএসসি পরীক্ষার ফল প্রকাশের দিনে রাজধানীর স্কুলগুলোতে দেখা যায় কোমলমতি শিক্ষার্থীদের বাঁধভাঙা উচ্ছ্বাস। এবারও তার ব্যতিক্রম হওয়ার কথা নয়। শিক্ষার্থীদের উদযাপনের সুযোগ দিতে প্রস্তুতিও সেরে রেখেছে নামিদামি স্কুলগুলো।

তবে এবার বাধ সেধেছে রাজনৈতিক দলগুলোর পাল্টাপাল্টি কর্মসূচি। আগামীকাল রাজধানীর নয়াপল্টন ও বায়তুল মোকাররম দক্ষিণ গেটে বিএনপি ও আওয়ামী লীগের সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে। কয়েকদিন ধরে বেশ উত্তাপ ছড়ানো এ দুই সমাবেশের দিনে নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানে গিয়ে ফল দেখা এবং আনন্দ-উচ্ছ্বাস করা নিয়ে দোলাচলে আছেন শিক্ষার্থীরা। অনেক শিক্ষার্থী উদ্বেগ ও উৎকণ্ঠায় রয়েছেন নিরাপত্তা নিয়ে। বিশেষ করে রাজধানীর শিক্ষার্থীরা।

রাজনৈতিক দলের সমাবেশ গুলোকে কেন্দ্র করে বিশৃঙ্খলা ও নাশকতার শঙ্কাও প্রকাশ করছেন অনেকে। এ অবস্থায় শিক্ষার্থীদের ফল প্রাপ্তির উচ্ছ্বাসে ভাটা পড়বে বলে মনে করছেন শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। আবার শিক্ষার্থীরা ফল দেখতে স্কুলে কীভাবে যাবেন তা নিয়ে দুশ্চিন্তায় আছেন অভিভাবকরা।

অভিভাবকরা বলছেন, আগামীকালের রাজনৈতিক কর্মসূচি ঘিরে বুধবার থেকেই রাজধানীতে যানবাহন চলাচল কমেছে। প্রয়োজন ছাড়া কেউ বাসা থেকে বের হচ্ছেন না। এ অবস্থায় কীভাবে সন্তানকে বাড়ির বাইরে পাঠাব?

শিক্ষা সংশ্লিষ্টরা বলছেন, অতীতে কখনো ছুটির দিনে (শুক্রবার) পাবলিক পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়নি। এবারই প্রথম ছুটির দিনে ফল প্রকাশ করা হচ্ছে। এবার শিক্ষার্থীরা একটু বেশি আনন্দ-উচ্ছ্বাসে মাততে পারবে বলে আশা করেছিলাম। কিন্তু এখন রাজনৈতিক কর্মসূচির কারণে শিক্ষার্থীদের উদযাপন নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছে।

রাজধানীর নামিদামি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রধানরা বলছেন, শিক্ষার্থীদের ফল প্রকাশের জন্য প্রতিবারের মতো এবারও রেজাল্ট কর্নার থাকবে। তাদের আনন্দে যেন কোনো ভাটা না পড়ে সেজন্য ঢাক-ঢোল, বাদ্যযন্ত্রসহ সব ধরনের প্রস্তুতি আছে। রাজনৈতিক কর্মসূচির কারণে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের উপস্থিতি কম থাকতে পারে।

ভিকারুননিসা স্কুলের এসএসসি পরীক্ষার্থী মৌমিতা জাহানের মা শামসুন্নাহার তার শঙ্কার কথা জানিয়ে বলেন, দুই রাজনৈতিক দলের কর্মসূচির কারণে দুইদিন ধরে বাসা থেকেই বের হই না। রাস্তা ফাঁকা হয়ে গেছে। এ অবস্থায় মেয়েকে কার নিরাপত্তায় স্কুলে পাঠাবো?

রাজধানীর আইডিয়ার স্কুল থেকে এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছে তানভীরুল ইসলাম। সে জানায়, দশ বছর একই স্কুলে পড়েছি। ফল প্রকাশের পর বন্ধু-সহপাঠীদের সঙ্গে আনন্দ-উচ্ছ্বাস করার ইচ্ছে ছিল। কিন্তু সমাবেশের কারণে বাবা আমাকে বকাড়ির বাইরে যেতে নিষেধ করছে।

পরীক্ষার ফলাফলের কথা চিন্তা করে শুক্রবার কর্মসূচি স্থগিত করার দাবি করেছে অনেক শিক্ষার্থী। কিংবা ফল প্রকাশ একদিন পিছিয়ে দেওয়ার পক্ষে তারা।

জানতে চাইলে রাজধানীর ভিকারুননিসা স্কুল অ্যান্ড কলেজের প্রধান শিক্ষক কেকা রায় চৌধুরী বলেন, এসএসসির ফল একজন শিক্ষার্থীর জীবনের খুব গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায়। ভালো ফলাফল করলে একজন শিক্ষার্থী চায় বন্ধু-সহপাঠীদের সঙ্গে নেচে-গেয়ে আনন্দ ভাগাভাগি করতে। শুধু শিক্ষার্থী নয়, অভিভাবকরাও এতে শরিক হন। আগামীকাল সমাবেশের কারণে অনেক অভিভাবক হয়ত নিরাপত্তার কথা ভেবে সন্তানকে বের হতে দেবেন না। তবে আমাদের পক্ষ থেকে সব ধরনের প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।

আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ ফৌজিয়া রশিদী বলেন, স্কুলে এসএসসি পরীক্ষার্থীদের ফল জানার জন্য আলাদা কর্নার থাকবে। সেখানে বাদ্যযন্ত্র, বাদকসহ সব ধরনের ব্যবস্থা থাকবে। শিক্ষার্থীরা অন্যান্য বছরের মতো এবারও উচ্ছ্বাস করতে পারবে।

রাজনৈতিক কর্মসূচির কারণে শিক্ষার্থীরা আসতে পারবে কি না কিংবা তাদের নিরাপত্তার বিষয়টি কীভাবে দেখছেন- এ প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এটা তো আমি বলতে পারব না। নিরাপত্তার কথা অভিভাবকরা ভাববেন।

জানতে চাইলে ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান এবং আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সমন্বয় কমিটির আহ্বায়ক অধ্যাপক তপন কুমার সরকার বলেন, ফল প্রকাশের পর শিক্ষার্থীরা আনন্দ-উচ্ছ্বাস করে এটা প্রতি বছরই দেখে আসছি। এখন রাজনৈতিক কর্মসূচির কারণে তা বাধাগ্রস্ত হলে আমাদের কিছু করার নেই।

এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ হবে আগামীকাল শুক্রবার (২৮ জুলাই)। অন্যান্য বছর কর্মদিবসে ফল প্রকাশ হলেও এবারই প্রথমবারের মতো সরকারি ছুটির দিনে ফল প্রকাশ করতে যাচ্ছে আন্তঃশিক্ষা বোর্ড। সকাল সাড়ে ১০টায় নিজ নিজ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে এবং অনলাইনে একযোগে ফল প্রকাশিত হবে।

এবছর গত ৩০ এপ্রিল শুরু হয় এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা। শেষ হয় ২৮ মে। সে হিসেবে ৩০ জুলাই এসএসসি পরীক্ষা শেষ হওয়ার ৬০ দিন পূর্ণ হবে। সাধারণত দুই মাসের মধ্যে ফল প্রকাশের রেওয়াজ আছে। এবারও এর ব্যত্যয় ঘটছে না।

Development by: webnewsdesign.com